এমপিওভুক্তির চূড়ান্ত তালিকা থেকে বাদপড়াদের আপিলের সুযোগ - কলেজ - দৈনিকশিক্ষা


এমপিওভুক্তির চূড়ান্ত তালিকা থেকে বাদপড়াদের আপিলের সুযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক |

১১৫টি প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির চূড়ান্ত তালিকা থেকে বাদ পড়েছে। এগুলোর মধ্যে রয়েছে ১৮টি স্কুল কলেজ, ৫৮টি মাদরাসা ও ৩৯টি কারিগরি প্রতিষ্ঠান। গত বছর প্রকাশিত প্রাথমিক তালিকায় থাকলেও চূড়ান্ত তালিকা থেকে বাদপড়া এসব প্রতিষ্ঠানগুলো সচিব ও মহাপরিচালকের কাছে আপিল করতে পারবে। শুক্রবার (১ মে) শিক্ষা মন্ত্রণালয় সূত্র দৈনিক শিক্ষাডটকমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

সূত্র জানায়, নতুন এমপিও ভর্তির জন্য প্রকাশিত প্রাথমিক তালিকা থেকে বাদ পড়া প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রধানরা আগামী একমাসের মধ্যে রিভিউর আবেদন করতে পারবেন। কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগ থেকে ইতিমধ্যে এ-সংক্রান্ত আদেশ জারি করা হয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোকে যুক্তিসংগত কারণ উল্লেখ করে আগামী ৩০ দিনের মধ্যে কাগজপত্রসহ বিভাগের সচিব বরাবর আবেদন করতে হবে।

কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগ সূত্র দৈনিক শিক্ষাডটকমকে জানায়, তালিকা থেকে বাদ পড়া ৯৭টি মাদরাসা ও কারিগরি প্রতিষ্ঠান রিভিউ আবেদন করতে পারবেন। তাদের আগামী ৩০ দিনের মধ্যে কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব বরাবর আবেদন করতে বলা হয়েছে। আবেদনের কপি কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর ও মাদরাসা শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালককেও পাঠাতে হবে। রিভিউ আবেদনে যুক্তি সংগত কারণ উল্লেখ করতে হবে। 

যদিও এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের রিভিউ আবেদন গ্রহণের আদেশ জারি করেনি মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ। তাদের ওয়েবসাইটে মাদরাসা ও কারিগরি আদেশটি ঝুলতে দেখা গেছে। 

বুধবার (২৯ এপ্রিল) মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ থেকে স্কুল- কলেজের এবং বৃহস্পতিবার (৩০ এপ্রিল) কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগ থেকে কারিগরি ও মাদরাসার নতুন এমপিওভুক্ত প্রতিষ্ঠানের চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করা হয়। মোট ২ হাজার ৭৩০ টি প্রতিষ্ঠান প্রাথমিকভাবে নির্বাচিত হলেও চূড়ান্ত তালিকায় স্থান পেয়েছে ২ হাজার ৬১৫টি প্রতিষ্ঠান। এগুলোর মধ্যে ১ হাজার ৬৩৩টি স্কুল-কলেজ ও ৯৮২টি কারিগরি প্রতিষ্ঠান ও মাদরাসা রয়েছে। 

জানা গেছে, প্রাথমিকভাবে নির্বাচিত ১ হাজার ৬৫১ টি প্রতিষ্ঠানের তথ্য যাচাই-বাছাই করে চূড়ান্তভাবে ১ হাজার ৬৩৩টি তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। এমপিওভুক্তির চূড়ান্ত তালিকা থেকে ১৮টি স্কুল এন্ড কলেজ বাদ পড়েছে।

এমপিওভুক্তির জন্য চূড়ান্তভাবে নির্বাচিত প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ৯৯১ টি মাধ্যমিক স্কুল, ৪৩০টি নিম্ন মাধ্যমিক স্কুল, ৬৮টি স্কুল এন্ড কলেজ, ৯২টি উচ্চ মাধ্যমিক কলেজ এবং ৫২ টি ডিগ্রি কলেজ রয়েছে। মোট ১ হাজার ৬৩৩ টি স্কুল-কলেজ চূড়ান্ত তালিকায় স্থান পেয়েছেন। যদিও গত২৩ অক্টোবর প্রকাশিত প্রাথমিক তালিকায় ১ হাজার ৬৫১টি স্কুল-কলেজ স্থান পেয়েছিল। ৯টি নিম্ন মাধ্যমিক স্কুল, ৪টি মাধ্যমিক স্কুল, ১টি উচ্চ মাধ্যমিক কলেজ এবং ৪ টি ডিগ্রি কলেজ চূড়ান্ত তালিকা থেকে বাদ পড়েছে। 

এমপিওভুক্তির জন্য চূড়ান্তভাবে নির্বাচিত হয়েছে ৯৮২টি মাদরাসা ও কারিগরি প্রতিষ্ঠান। এগুলোর মধ্যে ৪৮৩টি কারিগরি প্রতিষ্ঠান। কারিগরি প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে রয়েছে ২৬৩টি বিএম কলেজ, ৬০ টি কৃষি ডিপ্লোমা প্রতিষ্ঠান এবং ১৬০ টি ভোকেশনাল প্রতিষ্ঠান।  আর তালিকা থেকে ২০ টি বিএম কলেজ, ১৭টি ভোকেশনাল প্রতিষ্ঠান ও ২টি কৃষি ডিপ্লোমা প্রতিষ্ঠান তালিকা থেকে বাদ পড়েছে।

চূড়ান্তভাবে ৪৯৯ মাদরাসার মধ্যে ৩২৪টি দাখিল মাদরাসা, ১১৯ টি আলিম মাদরাসা, ৩৪টি ফাযিল মাদরাসা ও ২২টি কামিল মাদরাসা চূড়ান্ত তালিকায় আছে।আর তালিকা থেকে ৩৪ টি দাখিল মাদরাসা, ৯ টি আলিম মাদরাসা, ৮টি ফাযিল মাদরাসা এবং ৭টি কামিল মাদরাসা চূড়ান্ত তালিকায় বাদ পড়েছে।

গত বছরের ২৩ অক্টোবর দুই হাজার সাতশ ত্রিশটি নতুন এমপিওভুক্ত ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর মধ্যে স্কুল ও কলেজের সংখ্যা ছিল ১ হাজার ৬৫১টি, মাদরাসা ৫৫৭টি এবং কারিগরি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ছিল ৫২২টি।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
করোনায় গত ২৪ ঘণ্টায় ২২ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২ হাজার ৩৮১ - dainik shiksha করোনায় গত ২৪ ঘণ্টায় ২২ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২ হাজার ৩৮১ দাখিলের ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন যেভাবে - dainik shiksha দাখিলের ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন যেভাবে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় পাস ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ - dainik shiksha এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় পাস ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ দাখিলে পাস ৮২ দশমিক ৫১ শতাংশ - dainik shiksha দাখিলে পাস ৮২ দশমিক ৫১ শতাংশ এসএসসি ভোকেশনালে পাস ৭২ দশমিক ৭০ শতাংশ - dainik shiksha এসএসসি ভোকেশনালে পাস ৭২ দশমিক ৭০ শতাংশ ১০৪টি প্রতিষ্ঠানে কেউ পাস করতে পারেনি - dainik shiksha ১০৪টি প্রতিষ্ঠানে কেউ পাস করতে পারেনি এসএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন ৭ জুনের মধ্যে - dainik shiksha এসএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন ৭ জুনের মধ্যে এখনই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলছে না : প্রধানমন্ত্রী - dainik shiksha এখনই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলছে না : প্রধানমন্ত্রী ৬ জুন থেকে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রক্রিয়া শুরুর প্রস্তাব - dainik shiksha ৬ জুন থেকে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রক্রিয়া শুরুর প্রস্তাব নন-এমপিও শিক্ষকদের তালিকা তৈরিতে ৯ নির্দেশ - dainik shiksha নন-এমপিও শিক্ষকদের তালিকা তৈরিতে ৯ নির্দেশ কলেজে ভর্তি : দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে - dainik shiksha কলেজে ভর্তি : দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছুটি বাড়ল ১৫ জুন পর্যন্ত - dainik shiksha বিশ্ববিদ্যালয়ের ছুটি বাড়ল ১৫ জুন পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি ১৫ জুন পর্যন্ত, ৩১ মে থেকে অফিস-আদালত খুলছে - dainik shiksha শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি ১৫ জুন পর্যন্ত, ৩১ মে থেকে অফিস-আদালত খুলছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website