জালিয়াতির মাধ্যমে বিজ্ঞপ্তি দিয়ে কলেজে শিক্ষক নিয়োগ - এমপিও - Dainikshiksha


গাইবান্ধার সাদুল্লাপুরেজালিয়াতির মাধ্যমে বিজ্ঞপ্তি দিয়ে কলেজে শিক্ষক নিয়োগ

দৈনিকশিক্ষা ডেস্ক |

জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় জালিয়াতির মাধ্যমে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রচার দেখিয়ে একটি কলেজে শিক্ষক নিয়োগ করার ঘটনা জানাজানি হওয়ায় তোলপাড় শুরু হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে গাইবান্ধা জেলার সাদুল্লাপুর উপজেলার শাহ আজগর আলী ডিগ্রি কলেজে। ঘটনার সঙ্গে ওই কলেজের অধ্যক্ষসহ বেশ কয়েকজন জড়িত বলে অভিযোগ উঠেছে। এ বিষয়ে উপ-পরিচালক মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর রংপুরে লিখিত অভিযোগ দাখিল করা হয়েছে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে। রোববার (২৮ জুলাই) সংবাদ পত্রিকায় প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা যায়।

লিখিত অভিযোগে জানা গেছে, শাহ আজগর আলী ডিগ্রি কলেজে দর্শন বিষয়ে প্রভাষক পদে ফাতেমাতুজ্জোহরা নামে এক মহিলার কাছে মোটা অঙ্কের অর্থ নিয়ে ওই পদে নিয়োগ দেয়ার প্রলোভন দেখানো হয়। এরপর তারা জাতীয় দৈনিক মানবজমিন পত্রিকায় ২০১৫ খ্রিষ্টাব্দের ৩ সেপ্টেম্বর তারিখের সংখ্যায় ১৮ পাতার দ্বিতীয় কলামে একটি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রচার করা দেখায়। প্রকৃত পক্ষে ওই তারিখে মানবজমিন পত্রিকায় এ ধরনের কোনো নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রচারিত হয়নি। কলেজ কর্তৃপক্ষ জালিয়াতির মাধ্যমে মানবজমিন পত্রিকার ১৮ পাতায় ভুয়া একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা দেখিয়ে নিয়োগ প্রক্রিয়াকে জায়েজ করার চেষ্টা করে। পরে কলেজ কর্তৃপক্ষ শিক্ষক পদে ফাতেমাতুজ্জোহরাকে দর্শন বিভাগের প্রভাষক পদে ভুয়া নিয়োগ দেখিয়ে তার চাকরি এমপিওভুক্ত করানোর জন্য ভুয়া ও জাল কাগজপত্র দেখিয়ে উপজেলা ও জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাদের ম্যানেজ করে উপ-পরিচালক উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা দপ্তরে অনলাইনের মাধ্যমে কাগজ প্রেরণ করে। এ বিষয়ে উপ-পরিচালকের দপ্তর থেকে মূল কাগজপত্রসহ প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দেখাতে বলা হলেও তারা দেখাতে পারেনি। ফলে কয়েকদফা তার এমপিওভুক্তির আবেদন সরাসরি নাকচ হয়ে যায়। তার পরেও আবারও এমপিওভুক্তির জন্য অনলাইনে কাগজ পাঠানো হয়েছে বলে জানা গেছে। বিষয়টি নিয়ে পুরো ঘটনা বর্ণনা করে উপ-পরিচালক মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরে লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হলে বিষয়টি তদন্ত করার জন্য আদেশ দেয়া হয়েছে বলে অফিস সূত্রে জানা গেছে।

এদিকে জালিয়াতির মাধ্যমে ভুয়া কাগজপত্র তৈরি করে জাতীয় পত্রিকায় জালিয়াতির মাধ্যমে ভুয়া নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রচার করা দেখিয়ে দর্শন বিভাগে শিক্ষক নেয়ার ব্যাপারে শাহ আজগর আলী কলেজের অধ্যক্ষ আলেক উদ্দিনের সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি কোন সদুত্তোর দিতে পারেননি।

অভিজ্ঞ মহলের মতে এই জঘন্য জালিয়াতির ঘটনা দুদকের মাধ্যমে তদন্ত করে দায়ীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানানো হয়েছে।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
Close --> জেএসসি-জেডিসির ফল ৩১ ডিসেম্বর - dainik shiksha জেএসসি-জেডিসির ফল ৩১ ডিসেম্বর প্রাথমিক-ইবতেদায়ি সমাপনীর ফল বছরের শেষ দিনে - dainik shiksha প্রাথমিক-ইবতেদায়ি সমাপনীর ফল বছরের শেষ দিনে সরকারি স্কুলে ভর্তির বয়স নির্ধারণ - dainik shiksha সরকারি স্কুলে ভর্তির বয়স নির্ধারণ শিক্ষামন্ত্রীকে লেখা এমপিদের চিঠিতে সচিত্র এমপিও কেলেঙ্কারি - dainik shiksha শিক্ষামন্ত্রীকে লেখা এমপিদের চিঠিতে সচিত্র এমপিও কেলেঙ্কারি প্যাটার্ন জটিলতায় এমপিওভুক্তিতে শিক্ষকদের ভোগান্তি (ভিডিও) - dainik shiksha প্যাটার্ন জটিলতায় এমপিওভুক্তিতে শিক্ষকদের ভোগান্তি (ভিডিও) রাষ্ট্রীয় সব অনুষ্ঠানে ‘জয় বাংলা’ স্লোগান ব্যবহারের নির্দেশ - dainik shiksha রাষ্ট্রীয় সব অনুষ্ঠানে ‘জয় বাংলা’ স্লোগান ব্যবহারের নির্দেশ প্যাটার্ন জটিলতায় এমপিওভুক্তিতে শিক্ষকদের ভোগান্তি (ভিডিও) - dainik shiksha প্যাটার্ন জটিলতায় এমপিওভুক্তিতে শিক্ষকদের ভোগান্তি (ভিডিও) ২০২০ খ্রিষ্টাব্দের স্কুলের ছুটির তালিকা - dainik shiksha ২০২০ খ্রিষ্টাব্দের স্কুলের ছুটির তালিকা জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া দৈনিকশিক্ষার ফেসবুক লাইভ দেখতে আমাদের সাথে থাকুন প্রতিদিন রাত সাড়ে ৮ টায় - dainik shiksha দৈনিকশিক্ষার ফেসবুক লাইভ দেখতে আমাদের সাথে থাকুন প্রতিদিন রাত সাড়ে ৮ টায় শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন দৈনিক শিক্ষার আসল ফেসবুক পেজে লাইক দিন - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষার আসল ফেসবুক পেজে লাইক দিন please click here to view dainikshiksha website