ননএমপিওদের অবস্থান কর্মসূচি অব্যাহত - এমপিও - Dainikshiksha


ননএমপিওদের অবস্থান কর্মসূচি অব্যাহত

নিজস্ব প্রতিবেদক |

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির দাবিতে রোদ-ধুলো-মশার কামড় উপেক্ষা করে আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন শিক্ষক-কর্মচারীরা। তারা প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাতের অপেক্ষায় প্রহর গুণছেন। আজ রোববার (২৪ মার্চ) টানা অবস্থান কর্মসূচির ৫ম দিনে বেশ কয়েকজন শিক্ষক অসুস্থ হয়ে পড়েছেন বলে জানা গেছে। তাদের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। এ ছাড়াও বরগুনার তালতলি উপজেলার শিক্ষক শৈলেনচন্দ্র মজুমদার (৫০) স্ট্রোক করে জাতীয় হৃদরোগ হাসপাতালে সিসিইউতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

গত বুধবার (২০ মার্চ) থেকে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনের ফুটপাতে ননএমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের ব্যানারে অবস্থান কর্মসূচি চলছে। সারা দেশের ননএমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রেখে কয়েক হাজার শিক্ষক-কর্মচারী এ কর্মসূচিতে অংশ গ্রহণ করেন।

গতকাল অবস্থান কর্মসূচিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, শিক্ষকদের বাঁচা-মরার এই যৌক্তিক ও মানবিক আবেদন পূরণের জন্য প্রধানমন্ত্রীই আমাদের একমাত্র অবলম্বন। ননএমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের সভাপতি অধ্যক্ষ গোলাম মাহমুদুন্নবী ডলার দৈনিক শিক্ষাকে বলেন, প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ না পাওয়া পর্যন্ত ননএমপিও শিক্ষক-কর্মচারীরা অবস্থান চালিয়ে যাবেন। প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাতের জন্য শিক্ষক-কর্মচারীরা চলমান কর্মসূচি গ্রহণ করতে বাধ্য হয়েছেন। আমরা ননএমপিও শিক্ষক-কর্মচারীরা প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করে আমাদের বঞ্চনা-দুর্ভোগের বাস্তব চিত্র তুলে ধরতে চাই। আশা করি তিনি আমাদের দুঃখ-দুর্দশার কথা শুনলে দীর্ঘদিনের ঝুলে থাকা ননএমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো একযোগে এমপিওভুক্ত করে এই অনিশ্চয়তার হাত থেকে মুক্ত করবেন।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন - dainik shiksha এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ - dainik shiksha মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ মারধরে অসুস্থ হলে আবরারকে অন্য রুমে নিয়ে গিয়ে পেটাই : রবিন - dainik shiksha মারধরে অসুস্থ হলে আবরারকে অন্য রুমে নিয়ে গিয়ে পেটাই : রবিন কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? - dainik shiksha কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? ৪২ শতাংশই অন্য চাকরি না পেয়ে শিক্ষকতায় এসেছেন - dainik shiksha ৪২ শতাংশই অন্য চাকরি না পেয়ে শিক্ষকতায় এসেছেন ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত - dainik shiksha ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website