নারী শিক্ষকের বিরুদ্ধে দুই প্রতিষ্ঠানে চাকরির অভিযোগ - কলেজ - দৈনিকশিক্ষা


নারী শিক্ষকের বিরুদ্ধে দুই প্রতিষ্ঠানে চাকরির অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক |

কিশোরীগঞ্জ সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ আব্দুর রউফের স্ত্রী আয়েশা আইরিন। তিনি একই সঙ্গে দুইটি এমপিওভুক্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে চাকরি করে সরকারী অংশের বেতন ভাতা উত্তোলন করছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগ মতে আয়েশা আইরিন কিশোরীগঞ্জ শিশু নিকেতন স্কুল এ্যান্ড কলেজের সামাজিক বিজ্ঞান বিষয়ে সহকারী শিক্ষক ও কিশোরীগঞ্জ মহিলা কলেজে ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের প্রভাষক হিসেবে কর্মরত। এই ব্যক্তি দুটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে চাকরি করে সরকারী বেতন ভাতা উত্তোলনের ঘটনাটি বুধবার প্রকাশ হয়ে পড়লে তোলপাড় সৃষ্টি হয়। বিষয়টি ধামাচাপা দিতে আয়েশা আইরিনের স্বামী কিশোরীগঞ্জ সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ আব্দুর রউফ বিভিন্ন স্থানে দেন দরবার শুরু করেন।

অভিযোগে জানা যায়, আয়েশা আইরিন ২০০১ সালের এপ্রিল মাসে কিশোরীগঞ্জ শিশু নিকেতন স্কুল এ্যান্ড কলেজে সামাজিক বিজ্ঞান শাখায় সহকারী শিক্ষক হিসেবে যোগদান করলে ওই বছরেই সেপ্টেম্বরেই তিনি সরকারী অংশের বেতনের জন্য এমপিওভুক্ত হন এবং সরকারী অংশের বেতনভাতা পেয়ে আসছেন। ওই শিক্ষিকার স্কুল শাখার ইনডেক্স নম্বর ৫৫৮৬১৪। তার সোনালী ব্যাংক কিশোরীগঞ্জ শাখার হিসাব নম্বর ৩৪০৩২৬৯৩। স্কুল শিক্ষিকা প্রতিমাসে এই হিসাব নম্বর থেকে ১৭ হাজার ৩৭৬ টাকা হারে বেতন ভাতা উত্তোলন করে আসছেন। ফলে এক বছরের হিসেবে তিনি স্কুল শাখা হতে সরকারী অংশের বেতনভাতা উত্তোলন করেন ২ লাখ ৩ হাজার ৮৮৪ টাকা।

অপরদিকে ওই স্কুল শিক্ষিকা উক্ত স্কুলে কর্মরত অবস্থায় কিশোরীগঞ্জ মহিলা কলেজে ইসলামের ইতিহাস বিষয়ে প্রভাষক পদে ২০০৪ সালে যোগদান করেন। ২০১৯ সালের ২৩ অক্টোবর কিশোরীগঞ্জ মহিলা কলেজ জাতীয়করণ হয়। সরকারের ঘোষণা অনুযায়ী ২০১৯ সালের পহেলা জুলাই থেকে চলতি বছরের (২০২০) মে মাস পর্যন্ত এমপিওভুক্ত কলেজ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা মোট ১১ মাসের সকল সুযোগ সুবিধাসহ সরকারী বেতনভাতা পাবেন। আয়েশা আইরিনের কলেজ শাখার ইনডেক্স নম্বর ৫৬৭৯৮৩০২ ও কিশোরীগঞ্জ সোনালী ব্যাংক শাখার হিসাব নম্বর (এ্যাকাউন্ট) ০১০২১৩০২। সে অনুযায়ী আয়েশা আইরিন কিশোরীগঞ্জ মহিলা কলেজের প্রভাষক হিসেবে সরকারী অংশের প্রতি মাসে বেতনভাতা বোনাস বাবদ ২৪ হাজার ৯০০ টাকা হিসেবে তার হিসাব নম্বরে জমা হয় ২ লাখ ৭৩ হাজার ৯০০ টাকা।

এরমধ্যে ১১ মাসের কল্যাণ তহবিলের জন্য ৯ হাজার ৬৮০ টাকা ও অবসরকালীন তহবিলের জন্য ১৪ হাজার ৫২০ টাকা কর্তনের পর তিনি মোট উত্তোলন করেন ২ লাখ ৪৯ হাজার ৭০০ টাকা। এ বিষয়ে জানতে চাইলে কিশোরীগঞ্জ শিশু নিকেতন স্কুল এ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ আব্দুল মালেক বুলবুল বলেন আয়েশা আইরিন আমার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের স্কুল শাখার সামাজিক বিজ্ঞানের সহকারী শিক্ষক। তিনি সরকারী অংশের বেতনের এমপিওভুক্ত। তিনি আমার প্রতিষ্ঠানের বাইরে একটি কলেজের প্রভাষক এটি আমার জানা নেই। তিনি এখনও আমার স্কুলের শিক্ষিকা হিসেবে কর্মরত। অপরদিকে কিশোরীগঞ্জ মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ মাহফুজার রহমানের কাছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার কলেজের ইসলামের ইতিহাস বিষয়ের প্রভাষক আয়েশা আইরিন। তিনি কিশোরীগঞ্জ শিশু নিকেতন স্কুল এ্যান্ড কলেজে স্কুল শাখায় সহকারী শিক্ষক (সামাজিক বিজ্ঞান) হিসেবে কর্মরত এটি আমার জানা নেই।

এ বিষয়ে আয়েশা আইরিন বলেন, আমি আগে (কিশোরীগঞ্জ শিশু নিকেতন স্কুল এ্যান্ড কলেজ) যে প্রতিষ্ঠানে কর্মরত ছিলাম সেই প্রতিষ্ঠানের উত্তোলনকৃত বেতনভাতা সরকারী কোষাগারে ফেরত দিয়েছি। কারণ আমার কলেজের সরকারী অংশের বেতন হয়েছে। আমি স্কুলের চাকরি ছেড়ে কলেজের চাকরিটি করব। এর বেশি বলতে পারবনা। কিশোরীগঞ্জ উপজেলা হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা আব্দুল খালেক বলেন, সরকারী কোষাগারে টাকা ফেরত বা জমা দেয়ার কোন কাগজপত্র হাতে পাইনি। কিশোরীগঞ্জ উপজেলার মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা এটিএম নুরুল আমি শাহ্ এ বিষয়ে বলেন, বিষয়টি আমার জানা নেই। লিখিত অভিযোগ পেলে তদন্তের মাধ্যমে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
ছাত্রাবাসে ধর্ষণের ঘটনায় জড়িত কাউকে ছাড় দেয়া হবে না : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী - dainik shiksha ছাত্রাবাসে ধর্ষণের ঘটনায় জড়িত কাউকে ছাড় দেয়া হবে না : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সংবাদ সম্মেলনে আসছেন শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha সংবাদ সম্মেলনে আসছেন শিক্ষামন্ত্রী করোনা: দেশে আরও ৩২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১ হাজার ৪০৭ - dainik shiksha করোনা: দেশে আরও ৩২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১ হাজার ৪০৭ অস্ত্র মামলায় সাহেদের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড - dainik shiksha অস্ত্র মামলায় সাহেদের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড মতিঝিল মডেল কলেজের টাকা আত্মসাতের ঘটনায় ২ জনের কারাদণ্ড - dainik shiksha মতিঝিল মডেল কলেজের টাকা আত্মসাতের ঘটনায় ২ জনের কারাদণ্ড বন্যার শুরুতেই আশ্রয়কেন্দ্র হিসেবে স্কুল-কলেজ খুলে দেয়ার নির্দেশ - dainik shiksha বন্যার শুরুতেই আশ্রয়কেন্দ্র হিসেবে স্কুল-কলেজ খুলে দেয়ার নির্দেশ এক কলেজেই জাল সনদধারী আট শিক্ষকের চাকরি! - dainik shiksha এক কলেজেই জাল সনদধারী আট শিক্ষকের চাকরি! শিক্ষাব্যবস্থা জাতীয়করণের দাবিতে শিক্ষক সমাবেশ ৫ অক্টোবর - dainik shiksha শিক্ষাব্যবস্থা জাতীয়করণের দাবিতে শিক্ষক সমাবেশ ৫ অক্টোবর প্রশ্নফাঁস করে কোটিপতি রংপুর মেডিকেল কলেজের পিয়ন - dainik shiksha প্রশ্নফাঁস করে কোটিপতি রংপুর মেডিকেল কলেজের পিয়ন please click here to view dainikshiksha website