আমাদের সঙ্গে থাকতে দৈনিকশিক্ষাডটকম ফেসবুক পেজে লাইক দিন।


প্রাথমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণের নির্দেশনা প্রশ্নে হাইকোর্টের রুল

নিজস্ব প্রতিবেদক | অক্টোবর ১২, ২০১৭ | স্কুল

জাতীয়করণের সকল শর্ত পূরণের পরও বিভিন্ন স্থানের ৫টি বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়কে জাতীয়করণের তালিকায় কেন অন্তর্ভুক্ত করা হবে না এবং ওই প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকদের চাকরি সরকারিকরণের নির্দেশন কেন প্রদান করা হবে মর্মে রুল জারি করেছে হাইকোর্ট।

বৃহস্পতিবার (১২ই অক্টোবর) হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি সালমা মাসুদ চৌধুরী এবং বিচারপতি এ. কে. এম জহিরুল হকের বেঞ্চ এ রুল জারি করেন।

রীট পিটিশনের শুনানী শেষে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব এবং প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালকসহ ৮ জন বিবাদীর প্রতি ৪ সপ্তাহের রুল জারি করেন দুই বিচারপতি গঠিত বেঞ্চ।

আইনজীবী অ্যাডভোকেট মোহাম্মদ সিদ্দিক উল্লাহ্ মিয়া বিভিন্ন জেলার ৫টি বিদ্যালয়ের রীটকারীদের পক্ষে রীট শুনানী করেন। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন, সহকারী এ্যাটর্নী জেনারেল অরবিন্দ কুমার রায়।

রীটকারীদের পক্ষের আইনজীবী সিদ্দিক উল্লাহ মিয়া দৈনিক শিক্ষাডটকমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

জাতীয়করণ থেকে বাদ পড়ায় এই রীট দায়ের করেছেন লক্ষ্মীপুর বেসরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় এর প্রধান শিক্ষক আবু তাহের, আড়লিয়া গৌরিপুর কমিউনিটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের জয়নাব আক্তার, সরিদাকান্দা বেসরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মোঃ জলাল উদ্দীন, ভরাপাড়া বেসরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মোঃ সাইফুল আলম সহ অনেকে।

মন্তব্যঃ ৪টি
  1. Mamun islam says:

    সরকারের একচোখে দুইনীতিকেন?

  2. মোঃ শাহিন কবির, সহকারি শিক্ষক, জামিরবাড়ীয়া খোদেজা হামিদ উচ্চ বিদ্যালয়, গাবতলী , বগুড়া। says:

    প্রাথমিক শিক্ষার ন্যায় এবার মাধ্যমিক শিক্ষাকে জাতীয়করণ করুন।

  3. রায়হান ‌‌আজাদ says:

    প্রাথমিক ‌শিক্ষা ‌স্তর ‌‌৮ম ‌‌‌‌শ্রেণি ‌পর্যন্ত ‌যদি ‌হয়,‌তাহলে ‌‌৮ম ‌‌শ্রেনি ‌পর্যন্ত ‌সকল ‌‌স্কুল ‌জাতীয়করণ ‌হওয়া ‌উচিত।

  4. দেলোয়ার হোসেন says:

    জাতীয়করন অতীশিগ্রই নাকরাহলে নবাই রিটকরবে বাদপড়া বেসরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়।

আপনার মন্তব্য দিন