বিদেশী শিক্ষিকাকে হেনস্তার অভিযোগে যুবক গ্রেফতার - স্কুল - দৈনিকশিক্ষা


বিদেশী শিক্ষিকাকে হেনস্তার অভিযোগে যুবক গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিবেদক |

গুলশানের একটি ইন্টারন্যাশনাল স্কুলে কর্মরত এক জার্মান নাগরিককে হেনস্তার অভিযোগে বরিশালের এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ। গত মঙ্গলবার রাতে রফিকুজ্জামান নামের ওই যুবককে গুলশান ২ নম্বর এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়।

জানা যায়, জার্মান নাগরিক এলিজা ওয়েজমান শিক্ষকতা করেন গুলশানের একটি ইংরেজি মাধ্যম স্কুলে। আড়াই মাস ধরে রফিকুজ্জামান নামের এক যুবক তাকে অনুসরণ করছিলেন। গত মঙ্গলবার (১০ ডিসেম্বর) গুলশানের একটি ক্লাবে ওই বিদেশিনীকে শারীরিক হেনস্তা করেন ওই যুবক। এ ঘটনায় নিজের নিরাপত্তা শঙ্কার কথা জানিয়ে ওই রাতেই গুলশান থানায় মামলা করেন এলিজা।

মামলা নথিভুক্ত হওয়ার পর তদন্ত শুরু করেন গুলশান থানা পুলিশ। পরবর্তিতে ওই রাতেই রফিকুজ্জামান  নামের ওই যুবককে গুলশান ২ নম্বর থেকে গ্রেফতার করা হয়। এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক নূরুজ্জামান বলেন, জার্মানী ওই নাগরিককে অনুসরণ করা যুবকের নাম রফিকুজ্জামান।

তার বাড়ি বরিশাল সদরে। ঢাকায় তিনি বাড্ডা এলাকার সুপার হোস্টেলে থাকতেন। গ্রেফতারের পর বুধবার তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। কি কারণে তিনি ওই বিদেশীকে অনুসরণ করছিলেন, তা জানতে প্রয়োজনে তাকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে বলেও জানান তিনি।

মামলার এজাহারে এলিজা উল্লেখ করেছেন, গত তিন মাস ধরে তিনি কানাডিয়ান ইন্টারন্যাশনাল স্কুলে শিক্ষকতা করছেন। গুলশান ২ নম্বরের একটি  ভাড়া বাসায় থেকে তিনি গুলশানের ওই স্কুলে যাওয়া আসা করেন। সেখানে যোগদানের ১৫ দিন পর তিনি লক্ষ্য করেন একজন যুবক তাকে অনুসরণ করছেন। বাসা থেকে বের হওয়ার সময়, আবার স্কুল থেকে বাসায় ফেরার সময়। এভাবে আড়াইমাসেরও বেশী সময় ওই যুবক এলিজাকে অনুসরণ করেন।

গত ১০ ডিসেম্বর রাত ৯টার দিকে এলিজা গুলশান ২ নম্বরে জার্মান ক্লাবে উদ্দেশ্যে বাসা থেকে বের হন। এ সময় ওই যুবক তাকে অনুসরণ করতে শুরু করে। এলিজা ক্লাবে প্রবেশের পর ওই যুবকও সেখানে প্রবেশের চেষ্টা করেন। সেখানে কয়েক দফা নিরাপত্তাকর্মীদের সঙ্গে তার বাকবিতন্ডাও হয়। পরে এলিজা বাসায় ফেরার জন্য ক্লাব থেকে বের হলে ওই যুবক তার পথরোধ করে এবং চার মিনিট তাকে শারীরিক ভাবে হেনস্তা করেন।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
এইচএসসি পরীক্ষা ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা নিয়ে টেকনিক্যাল কমিটি কাজ করছে - dainik shiksha এইচএসসি পরীক্ষা ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা নিয়ে টেকনিক্যাল কমিটি কাজ করছে ইবির নতুন উপাচার্য শেখ আব্দুস সালাম - dainik shiksha ইবির নতুন উপাচার্য শেখ আব্দুস সালাম শিক্ষক নিয়োগ কমিশন আইনের খসড়া প্রস্তুত - dainik shiksha শিক্ষক নিয়োগ কমিশন আইনের খসড়া প্রস্তুত আটকে যাচ্ছে তৃতীয় চক্রে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া (ভিডিও) - dainik shiksha আটকে যাচ্ছে তৃতীয় চক্রে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া (ভিডিও) এইচএসসি পরীক্ষা নিয়ে শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যানদের তিন প্রস্তাব - dainik shiksha এইচএসসি পরীক্ষা নিয়ে শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যানদের তিন প্রস্তাব জাল নিবন্ধন সনদে এমপিওভুক্তি : প্রভাষক-অধ্যক্ষের বেতন বন্ধ - dainik shiksha জাল নিবন্ধন সনদে এমপিওভুক্তি : প্রভাষক-অধ্যক্ষের বেতন বন্ধ মাদরাসার স্বীকৃতি ও বিভাগ খোলার প্রস্তাব মূল্যায়নে মন্ত্রণালয়ের কমিটি - dainik shiksha মাদরাসার স্বীকৃতি ও বিভাগ খোলার প্রস্তাব মূল্যায়নে মন্ত্রণালয়ের কমিটি ঋণের কিস্তি পরিশোধ স্থগিত ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত - dainik shiksha ঋণের কিস্তি পরিশোধ স্থগিত ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত জালসনদেই ৭ বছর এমপিওভোগ! - dainik shiksha জালসনদেই ৭ বছর এমপিওভোগ! কবে কোন দিবস, কীভাবে পালন, নতুন নির্দেশনা জারি - dainik shiksha কবে কোন দিবস, কীভাবে পালন, নতুন নির্দেশনা জারি please click here to view dainikshiksha website