বৈধভাবে নিয়োগ পেয়েও এমপিওভুক্ত হতে পারছেন না ৩০০ শিক্ষক - এমপিও - দৈনিকশিক্ষা


বৈধভাবে নিয়োগ পেয়েও এমপিওভুক্ত হতে পারছেন না ৩০০ শিক্ষক

নিজস্ব প্রতিবেদক |

কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তরের নির্দেশনা মেনে কৃষি ডিপ্লোমা ইনস্টিটিউটে নিয়োগ পেয়েছেন, কিন্তু এমপিওভুক্ত হতে পারছেন না ৩০০ শিক্ষক।

জানা গেছে, জাতীয় শিক্ষক নিবন্ধন কর্তৃপক্ষ আট বছর ধরে এই পদের কোনো সার্কুলার না দেওয়ায় বিধি অনুযায়ী নিয়োগ পেয়েও তারা এমপিওভুক্ত হতে পারছেন না। শিক্ষা অধিদপ্তর ও এনটিআরসিএর সমন্বয়হীনতায় এমনটি হচ্ছে বলে অভিযোগ তাদের।

ভুক্তভোগী শিক্ষকরা জানান, কৃষি ডিপ্লোমা ইনস্টিটিউটে শিক্ষকদের জন্য মাত্র দুটি ট্রেড আছে। একটি ইনস্ট্রাকটর (টেক) ও অপরটি হলো ইনস্ট্রাক্টর (নন-টেক)। ২০১০ খ্রিষ্টাব্দথেকে ২০১৭ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত প্রতিবছর শিক্ষক নিবন্ধন সার্কুলারে শুধু ইনস্ট্রাকটর (টেক)-এর শিক্ষকদের জন্য নিবন্ধন ব্যবস্থা চালু ছিল। এ কারণে শুধু ঐ ট্রেডের শিক্ষকরা নিবন্ধিত হওয়ার সুযোগ পেয়েছেন। সুযোগ পেয়েছেন এমপিওভুক্ত হবার। কিন্তু কৃষি ডিপ্লোমা ইনস্টিটিউটের ইনস্ট্রাক্টর (নন-টেক) শিক্ষকদের জন্য ২০১০ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ২০১৭ পর্যন্ত এনটিআরসিএর শিক্ষক নিবন্ধন সার্কুলার দেওয়া হয়নি। এ কারণে ২০১১ খ্রিষ্টাব্দ বা তার আগে থেকে নিয়মানুযায়ী বৈধভাবে নিয়োগ নিয়ে তারা পাঠদান করে এলেও এমপিওভুক্ত হতে পারছেন না।

শিক্ষকরা জানান, ২০১৮ খ্রিষ্টাব্দের এনটিআরসিএর শিক্ষক নিবন্ধন সার্কুলারে কৃষি ডিপ্লোমা ইনস্টিটিউটের জন্য ইনস্ট্রাক্টর (টেক) ও ইনস্ট্রাক্টর(নন-টেক) উভয় পদেই এই প্রথমবারের মতো শিক্ষকদের জন্য নিবন্ধন করার সুযোগ দেওয়া হয়েছে। এর প্রিলিমিনারি পরীক্ষা শেষ হয়েছে কিন্তু লিখিত বা মৌখিক পরীক্ষা কোনোটাই এখনো শেষ হয়নি।

শিক্ষকরা আরো জানান, বাংলাদেশের কোথাও কৃষি ডিপ্লোমা ইনস্টিটিউটের ইনস্ট্রাক্টর (নন-টেক) শিক্ষকদের শিক্ষক নিবন্ধন সনদ নেই। তাদের অভিযোগে, আমরা জেলা শিক্ষা অফিসে গিয়ে উপযুক্ত কোনো সমাধান পাইনি। কোনো কোনো শিক্ষক কর্মকর্তা ধারণা করে ঐ বিষয়ে কলেজ নিবন্ধন সনদ নিতে বলেছেন। কিন্তু কলেজ নিবন্ধন এসএসসির পর দুই বছরের কোর্স ও ভিন্ন সিলেবাস। তাই কৃষি ডিপ্লোমা ইনস্টিটিউটের ইনস্ট্রাক্টর (নন-টেক) পদে ২০১৮ খ্রিষ্টাব্দের শিক্ষক নিবন্ধন চালু হওয়ার আগে নিয়োগপ্রাপ্ত শিক্ষক-কর্মচারীদের ক্ষেত্রে শিক্ষক নিবন্ধন প্রযোজ্য হবে না মর্মে বিজ্ঞপ্তি জারির জন্য সরকারের কাছে অনুরোধ জানিয়েছেন শিক্ষকরা।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
করোনায় গত ২৪ ঘণ্টায় ২২ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২ হাজার ৩৮১ - dainik shiksha করোনায় গত ২৪ ঘণ্টায় ২২ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২ হাজার ৩৮১ দাখিলের ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন যেভাবে - dainik shiksha দাখিলের ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন যেভাবে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় পাস ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ - dainik shiksha এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় পাস ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ দাখিলে পাস ৮২ দশমিক ৫১ শতাংশ - dainik shiksha দাখিলে পাস ৮২ দশমিক ৫১ শতাংশ এসএসসি ভোকেশনালে পাস ৭২ দশমিক ৭০ শতাংশ - dainik shiksha এসএসসি ভোকেশনালে পাস ৭২ দশমিক ৭০ শতাংশ ১০৪টি প্রতিষ্ঠানে কেউ পাস করতে পারেনি - dainik shiksha ১০৪টি প্রতিষ্ঠানে কেউ পাস করতে পারেনি এসএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন ৭ জুনের মধ্যে - dainik shiksha এসএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন ৭ জুনের মধ্যে এখনই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলছে না : প্রধানমন্ত্রী - dainik shiksha এখনই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলছে না : প্রধানমন্ত্রী ৬ জুন থেকে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রক্রিয়া শুরুর প্রস্তাব - dainik shiksha ৬ জুন থেকে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রক্রিয়া শুরুর প্রস্তাব নন-এমপিও শিক্ষকদের তালিকা তৈরিতে ৯ নির্দেশ - dainik shiksha নন-এমপিও শিক্ষকদের তালিকা তৈরিতে ৯ নির্দেশ কলেজে ভর্তি : দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে - dainik shiksha কলেজে ভর্তি : দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছুটি বাড়ল ১৫ জুন পর্যন্ত - dainik shiksha বিশ্ববিদ্যালয়ের ছুটি বাড়ল ১৫ জুন পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি ১৫ জুন পর্যন্ত, ৩১ মে থেকে অফিস-আদালত খুলছে - dainik shiksha শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি ১৫ জুন পর্যন্ত, ৩১ মে থেকে অফিস-আদালত খুলছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website