মেধা বৃত্তির টাকা মেরে দেয়ার অভিযোগ প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে - স্কুল - দৈনিকশিক্ষা


মেধা বৃত্তির টাকা মেরে দেয়ার অভিযোগ প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে

বাউফল (পটুয়াখালী প্রতিনিধি) |

পটুয়াখালীর বাউফলে পঞ্চম শ্রেণীর মেধাবৃত্তি পাওয়া তিন শিক্ষার্থীর প্রায় পঁচিশ হাজার টাকা কৌশলে হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে ধানদি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের নামে। জানা গেছে, উপজেলার নুরাইনপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের আরিফুল ইসলাম, আবু সালেহ রাশেদ ও আবদুল্লাহ আল কাফি ২০১৫ খ্রিষ্টাব্দে প্রাইমারি স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে সাধারণ মেধাবৃত্তি পেয়ে ধানদি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ষষ্ঠ শ্রেণীতে ভর্তি হয়। 

মেধা তালিকায় আবদুল্লাহ আল কাফি, আরিফুল ইসলাম ও আবু সালেহ রেশাদ। ছবি সংগৃহীত

নিয়ম অনুযায়ী শিক্ষার্থীরা যে স্কুলে ভর্তি হবে সেই স্কুলের প্রধান শিক্ষক সংশ্লিষ্ট দফতর থেকে টাকা তুলে শিক্ষার্থীদের হাতে দেবেন। ভর্তির পরে ওই শিক্ষার্থীরা বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষকের কাছ থেকে মাত্র ৩ হাজার ৪শত টাকা হাতে পেলেও আর কোন টাকা পায়নি তারা।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের গেজেট অনুযায়ী একজন শিক্ষার্থী পঞ্চম থেকে অষ্টম শ্রেণী পর্যন্ত পাচ্ছেন ৮ হাজার ৭৫ টাকা । ২০১৫ খ্রিষ্টাব্দে উপজেলার মেধাতালিকায় থাকা শিক্ষার্থীরা তাদের বরাদ্দকৃত টাকা পেলেও তিন শিক্ষার্থী কি কারণে টাকা পায়নি তা তারা জানেনা। 

শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, মেধা তালিকায় থাকা উপজেলার সকল শিক্ষার্থীরা তাদের প্রাপ্য টাকাটা পেলেও আমাদের টাকা দেয়া হচ্ছেনা। শিক্ষার্থীদের অভিভাবক বাবুল আখতার, আবদুল ছত্তার ও হারুন অর রশিদ জানান, প্রধান শিক্ষক মঞ্জুর মোর্শেদের কাছে একাধিকবার টাকার জন্য গেলে তিনি জানান ওই টাকা অফিসে খরচ হয়ে গেছে। 

প্রধান শিক্ষক মঞ্জুর মোর্শেদ বলেন, শিক্ষার্থীরা তার স্কুলে ভর্তি হওয়ার পরে টাকা পেয়েছে। বাউফল উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার শহিদুল ইসলাম বলেন, ধানদি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক টাকা উঠিয়েছেন, কেন দেয়নি খোঁজ নিয়ে ব্যবস্থা নেয়া হবে।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
জনগণের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রীর ৪ নির্দেশনা - dainik shiksha জনগণের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রীর ৪ নির্দেশনা করোনায় দেশে আরো ১ জন আক্রান্ত, সুস্থ ৪ - dainik shiksha করোনায় দেশে আরো ১ জন আক্রান্ত, সুস্থ ৪ ‘প্রয়োজনে বাইরে গেলে সঙ্গে পরিচয়পত্র রাখুন’ - dainik shiksha ‘প্রয়োজনে বাইরে গেলে সঙ্গে পরিচয়পত্র রাখুন’ করোনা : বন্ধের মধ্যেও চেক নিষ্পত্তি হবে - dainik shiksha করোনা : বন্ধের মধ্যেও চেক নিষ্পত্তি হবে বাড়িওয়ালাদের এক মাসের ভাড়া মওকুফ করার আহ্বান মেয়র আরিফের - dainik shiksha বাড়িওয়ালাদের এক মাসের ভাড়া মওকুফ করার আহ্বান মেয়র আরিফের করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে কেমন হতে পারে শিক্ষকের ভূমিকা - dainik shiksha করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে কেমন হতে পারে শিক্ষকের ভূমিকা প্রাথমিক শিক্ষকরা মার্চের বেতন সময়মতোই পাবেন - dainik shiksha প্রাথমিক শিক্ষকরা মার্চের বেতন সময়মতোই পাবেন ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত বাড়তে পারে সাধারণ ছুটি - dainik shiksha ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত বাড়তে পারে সাধারণ ছুটি টিভিতে পাঠদান: সারাদেশের শিক্ষকরাই সুযোগ পাবেন - dainik shiksha টিভিতে পাঠদান: সারাদেশের শিক্ষকরাই সুযোগ পাবেন করোনা সন্দেহ হলে যা করতে হবে - dainik shiksha করোনা সন্দেহ হলে যা করতে হবে ক্ষমা চেয়ে রেহাই পেলেন ‘লাল চা’ খাওয়ার গুজব ছড়ানো সেই শিক্ষক - dainik shiksha ক্ষমা চেয়ে রেহাই পেলেন ‘লাল চা’ খাওয়ার গুজব ছড়ানো সেই শিক্ষক কান ধরে দাঁড় করানো সেই প্রবীণদের কাছে ক্ষমা চাইলেন ইউএনও - dainik shiksha কান ধরে দাঁড় করানো সেই প্রবীণদের কাছে ক্ষমা চাইলেন ইউএনও কান ধরিয়ে উঠবস করানো সেই নারী এসিল্যান্ডকে প্রত্যাহার - dainik shiksha কান ধরিয়ে উঠবস করানো সেই নারী এসিল্যান্ডকে প্রত্যাহার সংসদ টেলিভিশনের ক্লাস রুটিন দেখুন - dainik shiksha সংসদ টেলিভিশনের ক্লাস রুটিন দেখুন আরও ১ হাজার স্কুল স্থাপনের উদ্যোগ - dainik shiksha আরও ১ হাজার স্কুল স্থাপনের উদ্যোগ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন please click here to view dainikshiksha website