শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা শুরু আজ - চাকরির খবর - Dainikshiksha


শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা শুরু আজ

নিজস্ব প্রতিবেদক |

১৫তম শিক্ষক নিবন্ধনের লিখিত পরীক্ষা আজ শুক্রবার (২৬ জুলাই) শুরু হচ্ছে। ২৬ ও ২৭ জুলাই নিবন্ধনের লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। প্রিলিমিনারিতে উত্তীর্ণ ১ লাখ ৫২ হাজার প্রার্থী লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করবেন। ইতোমধ্যেই শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে এনটিআরসিএ। এনটিআরসিএ সূত্র দৈনিক শিক্ষাকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

গত ১৮ মার্চ ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করে এনটিআরসিএ। নির্ধারিত তারিখ অনুযায়ী আজ শুক্রবার (২৬ জুলাই) সকাল ৯টা থেকে ১২টা পর্যন্ত স্কুল ও স্কুল পর্যায়-২ এর লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। আর শনিবার (২৭ জুলাই) সকাল ৯টা থেকে ১২টা পর্যন্ত কলেজ পর্যায়ের লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

এর আগে গত ১৯ এপ্রিল ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধনের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। গত ১৯ মে ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধনের প্রিলিমিনারি পরীক্ষার ফল প্রকাশ হয়। প্রিলিমিনারিতে উত্তীর্ণ হয়েছে ১ লাখ ৫২ হাজার পরীক্ষার্থী। পাসের হার ছিল ২০ দশমিক ৫৩ ভাগ।  উত্তীর্ণদের মধ্যে স্কুল পর্যায়ের ৫৫ হাজার ৫৯৬ জন,  স্কুল পর্যায়-২ এর ৪ হাজার ১২৯ জন এবং কলেজ পর্যায়ের ৯২ হাজার ২৭৫ জন প্রার্থী রয়েছেন। প্রিলিমনারিতে ৮ লাখ ৭৬ হাজার ৩৩ জন প্রার্থী অংশগ্রহণ করেছিলেন।

জানা গেছে, ১৫তম নিবন্ধনের লিখিত পরীক্ষার প্রবেশপত্র ওয়েবসাইটে ( http://ntrca.teletalk.com.bd/admitcard/) আপলোড করা হয়েছে। এসএমএস পাঠিয়ে প্রার্থীদের এ বিষয়ে জানিয়েছে এনটিআরসিএ। প্রার্থীরা ইউজার আইডি ও পাসওয়ার্ড  দিয়ে অ্যাডমিট কার্ডের সফট কপি সংগ্রহ করতে পারবেন। তা প্রিন্ট করে সাথে নিয়ে লিখিত পরীক্ষা দিতে আসতে হবে প্রার্থীদের। প্রবেশপত্রে পরীক্ষার ভেন্যু ও তারিখ উল্লেখ আছে।  

এদিকে যারা অ্যাডমিট কার্ড ডাউনলোড করার পাসওয়ার্ড হারিয়ে ফেলেছেন তাদের পাসওয়ার্ড রিকভার করার সুযোগ দিয়েছে এনটিআরসিএ। নির্ধারিত ওয়েবসাইটে (http://ntrca.teletalk.com.bd/options/pass.php) ইউজার আইডি ও মোবাইল নম্বর দিয়ে পাসওয়ার্ড পুনরুদ্ধার করতে পারবেন প্রার্থীরা।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন - dainik shiksha এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ - dainik shiksha মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ মারধরে অসুস্থ হলে আবরারকে অন্য রুমে নিয়ে গিয়ে পেটাই : রবিন - dainik shiksha মারধরে অসুস্থ হলে আবরারকে অন্য রুমে নিয়ে গিয়ে পেটাই : রবিন কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? - dainik shiksha কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? ৪২ শতাংশই অন্য চাকরি না পেয়ে শিক্ষকতায় এসেছেন - dainik shiksha ৪২ শতাংশই অন্য চাকরি না পেয়ে শিক্ষকতায় এসেছেন ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত - dainik shiksha ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website