শিক্ষাকে আনন্দময় করতে মূল্যায়ন পদ্ধতিতে পরিবর্তন আসছে: শিক্ষামন্ত্রী - বিবিধ - দৈনিকশিক্ষা


শিক্ষাকে আনন্দময় করতে মূল্যায়ন পদ্ধতিতে পরিবর্তন আসছে: শিক্ষামন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক |

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন শিক্ষার্থীদের ওপর থেকে পরীক্ষার চাপ কমানো এবং শিক্ষাকে আনন্দময় করতে পরীক্ষার মূল্যায়ন পদ্ধতি পরিবর্তনে কাজ করছে সরকার। সে ক্ষেত্রে ধারাবাহিক মূল্যায়নের ওপর গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে। শারিরীক শিক্ষা, খেলাধুলা, চারু ও কারু এবং বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধকে জানি প্রভৃতি বিষয়সমূহ এ বছর থেকে ধারাবাহিক মূল্যায়নের আওতায় আসবে।
বুধবার (১ জানুয়ারি) সকালে সাভারের অধর চন্দ্র সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে ২০২০ খ্রিষ্টাব্দের বই উৎসবে শিক্ষার্থীদের মাঝে বিনামূল্যে বই  বিতরণের সময় এ কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন জিপিএ-৫ পাওয়ার বিষয়ে শিক্ষার্থীদের ওপর অহেতুক মানসিক চাপ না দিয়ে শিক্ষার্থীদেরকে সত্যিকার মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে আমাদের কাজ করতে হবে। একাডেমিক শিক্ষাই জীবনের জন্য চূড়ান্ত শিক্ষা নয়। তিনি শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে বলেন তোমরা স্বপ্ন দেখবে। মানুষ তার স্বপ্ন থেকে বড় হতে পারে না। যে যত বড় স্বপ্ন দেখবে সে তত বড় হবে। মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গীবাদ থেকে দূরে থাকতে তিনি শিক্ষার্থীদের প্রতি আহ্বান জানান।

তিনি বলেন, এ বছর ৪ কোট ২৭ লক্ষ ৫২ হাজার ১৯৮ জন শিক্ষার্থীদের মাঝে ৩৫ কোটি ৩৯ লক্ষ ৯৪ হাজার ১৯৭ কপি বই বিনামূল্যে বিতরণ করা হয়েছে। তিনি বলেন গত দশ বছর (২০১০ থেকে ২০২০ শিক্ষাবর্ষ) ৪৩ কোটি ১৯ লক্ষ ২৭ হাজার ৭৩৯  হাজার শিক্ষার্থীদের মাঝে ৩৩১ কোটি ৪৭ লক্ষ ৮৩ হাজার ৩৬৯ কপি বই বিনামূল্যে বিতরণ করা হয়েছে।

ডাঃ মোঃ এনামুর রহমান বলেন উপবৃত্তি দেয়ার ফলে শিক্ষার্থীদের ঝরে পরার হার অনেক কমেছে।

শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী   বলেন মাননীয়  প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে  শিক্ষা ক্ষেত্রে ব্যাপক উন্নয়ন  সাধিত হয়েছে। বছরের শুরুতে ৩৫ কোটি বই বিতরণ  সরকারের  একটা  বড় অর্জন।  সবাইকে জিপিএ  ৫ এর ধারণা  থেকে বের হয়ে আসতে হবে।  শিক্ষিত হয়ে সবাই ডেস্ক জব করবে এই ধরণের প্রথাগত চিন্তা  থেকে আমাদের বের হয়ে আসতে হবে এবং কারিগরি ও বৃত্তিমূলক কাজে মনোযোগ দিতে হবে। 

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব মোঃ মাহবুব হোসেনের সভাপতিত্বে এ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডাঃ মোঃ এনামুর রহমান, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সাবেক সিনিয়র সচিব মো. সোহরাব হোসাইন এবং কারিগরি ও মাদ্রাসা বিভাগের সচিব মুনশী  শাহাবুদ্দিন আহমেদ প্রমুখ।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
এক কলেজেই জাল সনদধারী আট শিক্ষকের চাকরি! - dainik shiksha এক কলেজেই জাল সনদধারী আট শিক্ষকের চাকরি! শিক্ষাব্যবস্থা জাতীয়করণের দাবিতে শিক্ষক সমাবেশ ৫ অক্টোবর - dainik shiksha শিক্ষাব্যবস্থা জাতীয়করণের দাবিতে শিক্ষক সমাবেশ ৫ অক্টোবর নিবন্ধন সনদধারী শিক্ষকদের তথ্য সংগ্রহ করছে এনটিআরসিএ - dainik shiksha নিবন্ধন সনদধারী শিক্ষকদের তথ্য সংগ্রহ করছে এনটিআরসিএ করোনার টিকাকে বৈশ্বিক সম্পদ হিসেবে বিবেচনার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর - dainik shiksha করোনার টিকাকে বৈশ্বিক সম্পদ হিসেবে বিবেচনার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর একাদশে ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন শুরু - dainik shiksha একাদশে ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন শুরু করোনা ঝুঁকি থাকাকালিন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সুযোগ নেই - dainik shiksha করোনা ঝুঁকি থাকাকালিন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সুযোগ নেই এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে ধর্ষণ : আরেক আসামি অর্জুন গ্রেফতার - dainik shiksha এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে ধর্ষণ : আরেক আসামি অর্জুন গ্রেফতার এমসি কলেজে গণধর্ষণের ঘটনা তদন্তে কমিটি গঠন, ২ গার্ড সাসপেন্ড - dainik shiksha এমসি কলেজে গণধর্ষণের ঘটনা তদন্তে কমিটি গঠন, ২ গার্ড সাসপেন্ড বরখাস্ত অধ্যক্ষের অভিনব প্রতারণা - dainik shiksha বরখাস্ত অধ্যক্ষের অভিনব প্রতারণা please click here to view dainikshiksha website