ননএমপিও শিক্ষকদের দাবি মেনে নেয়া উচিত: এমপি ইয়াছিন - এমপিও - Dainikshiksha


ননএমপিও শিক্ষকদের দাবি মেনে নেয়া উচিত: এমপি ইয়াছিন

নিজস্ব প্রতিবেদক |

নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিভুক্তির দাবিতে চলমান আমরণ অনশন কর্মসূচির প্রতি সংহতি প্রকাশ করেছেন ঠাকুরগাঁও- ৩  আসনের সংসদ সদস্য ও ওয়ার্কার্স পার্টির নেতা অধ্যাপক ইয়াসিন আলী। তিনি বলেন, শিক্ষক-কর্মচারীদের দাবি ন্যায্য তারা বছরের পর বছর বিনা বেতনে চাকরি করছেন যা অমানবিক। সরকারের উচিত দাবি মেনে নিয়ে যথাযথ পদক্ষেপ নেয়া।

মঙ্গলবার (৩ জুলাই) বেলা ২টার দিকে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে স্বীকৃতিপ্রাপ্ত নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিভুক্তির দাবিতে নবম দিনের মতো চলা আমরণ অনশনের কর্মসূচিতে উপস্থিত হন তিনি। পরে সেখানে সংহতি প্রকাশ ও দাবি বাস্তবায়নে জোরালো ভূমিকা রাখার কথাও বলেন তিনি।

অনশনরত শিক্ষক-কর্মচারীদের উদ্দেশ্যে  তিনি বলেন, আমি নিজেও শিক্ষক। শিক্ষক হিসেবে শিক্ষকদের এই ন্যায্য দাবির বিষয়টি উপলব্ধি করি। আমি যখনিই সুযোগ পেয়েছি কথা বলেছি এ ব্যাপারে। আমি সংসদের বাজেট বক্তৃতায় ১০ মিনিটের মধ্যে ২/৩ মিনিট নন-এমপিও শিক্ষক-কর্মচারীদের দাবি নিয়ে কথা বলেছি।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের কর্ণধার। আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সম্মানে ও পদকে ভূষিত হয়েছেন। তিনি মানবিক প্রধানমন্ত্রী। আশা করছি প্রধানমন্ত্রী বিষয়টি গুরুত্ব দিয়ে বিবেচনা করবেন এবং দাবি বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে ব্যবস্থা নেবেন।

তিনি বলেন, বাজেট বক্তৃতায় বলেছি, নন-এমপিও শিক্ষকদের দাবি বাস্তবায়ন হোক। যদিও বাজেটে এমপিওভুক্তির বরাদ্দ সেভাবে দেয়া হয়নি। তবে বাজেটের সমাপনী বক্তৃতায় অর্থমন্ত্রী বলেছেন, ১ জুলাই থেকে এমপিওভুক্তি কার্যকর হবে। আমি বাজেটের বক্তৃতায় বলেছি, আংশিক নয় সব প্রতিষ্ঠানকে অর্ন্তভুক্তির জোর দাবি করেছি। যদি অর্থের সংকুলান না হয় তবে অর্ধেক বেতন দিয়ে হলেও সবাইকে অর্ন্তভুক্ত করেন।

সংসদ সদস্য ইয়াসিন আলী বলেন, আশা করি, আপনাদের আন্দোলন সফল হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আপনাদের বিষয়টি মানবিকভাবে গ্রহণ করবেন।

আন্দোলনকারী শিক্ষক-কর্মচারীদের উদ্দেশ্যে অধ্যাপক ইয়াছিন আলী বলেন, সরকারের যারা সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করেন তাদের কাছে তুলে ধরতে হবে। আমরা সংসদ সদস্যরা জোরালো ভূমিকা রাখবো। সংসদে জরুরি জনগুরুত্বপূর্ণ বিষয় হিসেবে বক্তব্য তুলে ধরবো।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা যেভাবে ২৬ হাজার প্রাথমিক শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানকে জাতীয়করণ করেছেন ঠিক সেভাবেই নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানকে এমপিও অন্তর্ভুক্ত করেছেন। আমি আপনাদের এ আন্দোলনে সমর্থন ও সমবেদনা জানাচ্ছি।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের সভাপতি অধ্যক্ষ গোলাম মাহমুদু্ন্নবী ডলার ও সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ ড. বিনয় ভূষণ রায়, সরদার শাহ আলমসহ অন্যান্যরা। 

বিনয় ভূষণ বলেন, আমরা প্রধানমন্ত্রীর দফতরে গিয়েছিলাম। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে দুটি প্রস্তাব দেয়া হয়েছে। আশা করছি, ২/১ দিনের মধ্যে আমরা ভালো সংবাদ পাবো। নইলে আন্দোলন চলবে।

দাবি দুটি হলো সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির আওতায় এনে আংশিক বেতন চালু করে পরবর্তী অর্থবছরে তা সমন্বয় করা। এ ছাড়া দীর্ঘদিন ধরে এমপিওভুক্ত না হওয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর সক্ষমতা যাচাইয়ের জন্য এমপিওভুক্তির পর তিন বছর সময় দেয়া।

চলতি ২০১৮-১৯ বাজেটে নতুন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির জন্য বরাদ্দের কোনো সুস্পষ্ট ঘোষণা না থাকায় ফের আন্দোলনে নামেন শিক্ষক-কর্মচারীরা।



পাঠকের মন্তব্য দেখুন
জেডিসি ও ইবতেদায়ি জন্মসনদ অনুযায়ী রেজিস্ট্রেশন বাধ্যতামূলক - dainik shiksha জেডিসি ও ইবতেদায়ি জন্মসনদ অনুযায়ী রেজিস্ট্রেশন বাধ্যতামূলক অর্থাভাবে দুই বোনের লেখাপড়া বন্ধ হওয়ার উপক্রম - dainik shiksha অর্থাভাবে দুই বোনের লেখাপড়া বন্ধ হওয়ার উপক্রম অবসর সুবিধার আবেদন শুধুই অনলাইনে, দালাল ধরবেন না(ভিডিও) - dainik shiksha অবসর সুবিধার আবেদন শুধুই অনলাইনে, দালাল ধরবেন না(ভিডিও) দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website