নতুন দুটি শিক্ষক পদ সৃষ্টি হচ্ছে সব স্কুলে - স্কুল - Dainikshiksha


নতুন দুটি শিক্ষক পদ সৃষ্টি হচ্ছে সব স্কুলে

নিজস্ব প্রতিবেদক |

বেকারত্ব দূর করার লক্ষ্যে সাধারণ স্কুলে কর্মমুখী শিক্ষা চালু করার উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। ২০২১ খ্রিষ্টাব্দ থেকে সব স্কুল ও মাদরাসায় কারিগরির দুইটি ট্রেড চালু হবে বলে সম্প্রতি জানান শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। সে লক্ষ্যে কাজ শুরু করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। ইতোমধ্যে সাধারণ স্কুলগুলোতে দুইজন কারিগরি শিক্ষকের পদ সৃষ্টি করার বিষয়ে আলোচনা চলছে। মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ সূত্র দৈনিকশিক্ষা ডটকমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। 

গত ২৩ জুন আন্তর্জাতিক মার্তৃভাষা ইনিস্টিটিউটে এক অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি জানান, ২০২১ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ৬ষ্ঠ, ৭ম ও ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের দুইটি কারিগরি বিষয় পড়তে হবে। বেকারত্ব দূর করতেই সরকার এ উদ্যোগ নিয়েছে বলে জানান তিনি।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, সর্বপ্রথম সেকেন্ডারি এডুকেশন সেক্টর ইনভেস্টমেন্ট প্রোগ্রামে (সেসিপ) আওতায় সাধারণ মাধ্যমিক স্কুলে কারিগরি কোর্স চালুর উদ্যোগ নেয়া হয়। প্রাথমিকভাবে দেশের ৬৪০টি স্কুলে কারিগরির দুইটি ট্রেড খোলার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছিল। সে প্রেক্ষিতে গত ফেব্রুয়ারিতে শুরু হয়েছিল ১ হাজার ২৮০জন শিক্ষক নিয়োগের আলোচনা। কিন্তু পরবর্তীতে শুধু ৬৪০টি নয় সব স্কুলে কারিগরি কোর্স খোলার বিষয়ে সরকারের উচ্চ পর্যায় থেকে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। শিক্ষা মন্ত্রণালয় সূত্র দৈনিক শিক্ষাকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছিল। 

পরবর্তীতে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি ও শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী অবশ্য বিভিন্ন অনুষ্ঠানে সাধারণ স্কুল ও মাদরাসায় কারিগরি কোর্স খোলার বিষয়টি জানিয়েছেন।

জানা যায়, গত ১৪ জুলাই শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সভা কক্ষে অনুষ্ঠিত এক সভায় এ বিষয়ে আলোচনা হয়। সভায় ২০২১ খ্রিষ্টাব্দ থেকে সাধারণ শিক্ষায় কারিগরি কোর্স খুলতে শিক্ষক নিয়োগের লক্ষ্যে সব স্কুলে দুইটি কারিগরি ট্রেডের শিক্ষকের পদ সৃষ্টি করার বিষয়ে প্রাথমিক সিদ্ধান্ত হয়েছে। 

সভায় উপস্থিত একজন কর্মকর্তা দৈনিকশিক্ষা ডটকমকে জানান, বেকারত্ব দূর করতে সাধারণ স্কুল কলেজে দুইটি কারিগরি বিষয় চালু করতে শিক্ষকদের পদ সৃষ্টি বিষয়ে আলোচনা হয়েছে সভায়। সভায় পদসৃষ্টির বিষয়ে প্রাথমিক সিদ্ধান্ত হয়েছে। তবে, এ বিষয়ে শিক্ষামন্ত্রীর সভাপতিত্বে আরও একটি সভা অনুষ্ঠিত হবে। সে সভায় সিদ্ধান্তটি চুড়ান্ত হবে। 

তিনি আরও জানান, সাধারণ স্কুলে দুইটি কারিগরি শিক্ষকের পদসৃষ্টির চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হলে তা বাস্তবায়নে অর্থ মন্ত্রণালয়ের সম্মতি লাগবে। অর্থ মন্ত্রণালয়ের সম্মতি পাওয়া গেলে এমপিও নীতিমালা ও জনবল কাঠামোতে পদ দুটি অন্তর্ভুক্ত করা হবে। 

নতুন দুইটি পদে কবে নাগাদ শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে এবং কোন পদ্ধতিতে শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে সে বিষয়ে এ কর্মকর্তা দৈনিকশিক্ষা ডটকমকে জানান, এনটিআরসিএর মাধ্যমে কারিগরি বিষয়ে নিবন্ধিত শিক্ষকরাই এসব পদে নিয়োগ পাবেন। তবে, এসব বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা আরও কয়েক দফা আলোচনা করবেন বলেও জানান তিনি। এছাড়া আাগামী বছর থেকে সাধারণ স্কুলে সৃষ্ট কারিগরি শিক্ষকদের পদগুলোতে নিয়োগ দেয়া হবে বলেও জানান এ কর্মকর্তারা। সৃষ্ট পদগলো অর্থ মন্ত্রণালয়ের সম্মতিক্রমে জনবল কাঠামোতে অন্তর্ভুক্ত হবার পর নিয়োগপ্রাপ্তরা এমপিওভুক্ত হতে পারবেন বলেও মন্তব্য করেন তিনি।   




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
গভর্নিং বডি-ম্যানেজিং কমিটি প্রবিধানমালা সংশোধনের সিদ্ধান্ত বৃহস্পতিবার - dainik shiksha গভর্নিং বডি-ম্যানেজিং কমিটি প্রবিধানমালা সংশোধনের সিদ্ধান্ত বৃহস্পতিবার সরকারি স্কুলের ৪৯ শিক্ষককে বদলি - dainik shiksha সরকারি স্কুলের ৪৯ শিক্ষককে বদলি সরকারিকরণ করলে সরকারেরই লাভ : শাব্বীর মোমতাজী (ভিডিও) - dainik shiksha সরকারিকরণ করলে সরকারেরই লাভ : শাব্বীর মোমতাজী (ভিডিও) প্রশ্নকর্তা ও মডারেটর খুঁজছে পিএসসি - dainik shiksha প্রশ্নকর্তা ও মডারেটর খুঁজছে পিএসসি ম্যানেজিং কমিটি প্রবিধানমালা সংশোধনের সিদ্ধান্ত ২২ আগস্ট - dainik shiksha ম্যানেজিং কমিটি প্রবিধানমালা সংশোধনের সিদ্ধান্ত ২২ আগস্ট কোন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের কবে ভর্তি পরীক্ষা, এক নজরে - dainik shiksha কোন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের কবে ভর্তি পরীক্ষা, এক নজরে ঢাবিতে ১ম বর্ষ ভর্তি বিজ্ঞপ্তি - dainik shiksha ঢাবিতে ১ম বর্ষ ভর্তি বিজ্ঞপ্তি শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website