সুষমা স্বরাজ আর নেই - বিবিধ - দৈনিকশিক্ষা


সুষমা স্বরাজ আর নেই

দৈনিকশিক্ষা ডেস্ক |

মঙ্গলবার রাতে নয়াদিল্লির একটি হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন বলে এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

মৃত্যুকালে এই বিজেপি নেত্রীর বয়স হয়েছিল ৬৭। প্রথম মোদি সরকারে পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে জনপ্রিয়তা অর্জন করেন সুষমা।

এনডিটিভি জানায়, শারীরিক অসুস্থতায় রাত সোয়া ৯টার দিকে অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সাইন্সেসে নেওয়া হয় সুষমাকে। সেখানেই মারা যান তিনি।

সাবেক এই মন্ত্রীর মৃত্যুর খবরে এরই মধ্যে হাসপাতালে ভিড় করেছেন তার দলের নেতৃবৃন্দসহ বিভিন্ন পর্যায়ের শুভাকাঙক্ষীরা।

জম্মু-কাশ্মীরের ৭০ বছরের বিশেষ মর্যাদা বাতিল করে রাজ্যসভায় ৩৭০ ধারা বাতিলের ঘোষণায় মঙ্গলবার সন্ধ্যায়ই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে শুভেচ্ছা জানিয়ে একটি টুইট করেছিলেন সুষমা।

সম্প্রতি সুষমার শারীরিক অবস্থা ভাল যাচ্ছিল না, এ কারণেএবার লোকসভা ভোটে দাঁড়াননি তিনি।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী থাকাকালীন টুইটারে অনেক মেসেজের উত্তর দিয়েছেন সাবেক এই মন্ত্রী। ৯ বারের সাংসদ ছিলেন সুষমা স্বরাজ। টুইটারে তার ফলোয়ারের সংখ্যা প্রায় ১২ দশমিক ৮ মিলিয়ন। ১৯৭৭ সালে তিনি দেশের সর্বকনিষ্ঠ মন্ত্রী হন।

সুষমা স্বরাজের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। এক টুইট বার্তায় তিনি লিখেছেন, অবিস্মরণীয় নেত্রীর প্রয়াণে ভারত শোকাহত। ভারতীয় রাজনীতির একটি গৌরবময় অধ্যায়ের সমাপ্তি।

মোদি লিখেছেন, ভারত দুঃখিত এক অবস্মরণীয় নেত্রীর প্রয়াণে, যিনি তার জীবন উৎসর্গ করেছিলেন মানুষের কাজে, এবং গরিব মানুষের জনজীবনকে আরও উন্নত করতে। সুষমা স্বরাজ এমন এক ধরনের মানুষ ছিলেন, যিনি কোটি কোটি মানুষের কাছে ছিলেন, অনুপ্রেরণা।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
মাদরাসা শিক্ষকদের জুন মাসের এমপিওর চেক ছাড় - dainik shiksha মাদরাসা শিক্ষকদের জুন মাসের এমপিওর চেক ছাড় স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের জুনের এমপিওর চেক ছাড় - dainik shiksha স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের জুনের এমপিওর চেক ছাড় শিক্ষার্থীর সংখ্যার ভিত্তিতে স্কুলের তথ্য চেয়েছে অধিদপ্তর - dainik shiksha শিক্ষার্থীর সংখ্যার ভিত্তিতে স্কুলের তথ্য চেয়েছে অধিদপ্তর আশ্রয়কেন্দ্র হিসাবে বন্যা দুর্গত এলাকায় স্কুল-কলেজ খুলে দেয়ার নির্দেশ - dainik shiksha আশ্রয়কেন্দ্র হিসাবে বন্যা দুর্গত এলাকায় স্কুল-কলেজ খুলে দেয়ার নির্দেশ তিন শিক্ষকের ডাবল এমপিও : দৈনিক শিক্ষায় প্রতিবেদন প্রকাশের পর অধ্যক্ষকে শোকজ - dainik shiksha তিন শিক্ষকের ডাবল এমপিও : দৈনিক শিক্ষায় প্রতিবেদন প্রকাশের পর অধ্যক্ষকে শোকজ দৈনিক শিক্ষায় প্রতিবেদন প্রকাশের পর : তথ্য গোপন করে নেয়া অনুদানের টাকা ফেরত - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষায় প্রতিবেদন প্রকাশের পর : তথ্য গোপন করে নেয়া অনুদানের টাকা ফেরত জটিলতার দ্রুত সমাধান চান এমপিওবঞ্চিত শিক্ষকরা - dainik shiksha জটিলতার দ্রুত সমাধান চান এমপিওবঞ্চিত শিক্ষকরা প্রভাষকের বিরুদ্ধে ভুয়া সনদে চাকরির অভিযোগ - dainik shiksha প্রভাষকের বিরুদ্ধে ভুয়া সনদে চাকরির অভিযোগ শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান - dainik shiksha শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক - dainik shiksha বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে - dainik shiksha শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website