১০ শতাংশ কর্তন জটিলতায় মাদরাসার এমপিও - এমপিও - Dainikshiksha


১০ শতাংশ কর্তন জটিলতায় মাদরাসার এমপিও

নিজস্ব প্রতিবেদক |

১০ শতাংশ চাঁদা কর্তন জটিলতায় মাদরাসা শিক্ষকদের ফেব্রুয়ারি মাসের এমপিওর চেক ছাড়ে দেরি হচ্ছে বলে জানা গেছে।  এমপিওভুক্ত মাদরাসা শিক্ষকদের ফেব্রুয়ারি মাসের বেতন থেকে অবসর ও কল্যাণ ফান্ডে ১০ শতাংশ টাকা চাঁদা হিসেবে কর্তন করার নির্দেশ দেয়া হয় মাদরাসা শিক্ষা অধিদপ্তরকে।  গত সপ্তাহে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাদরাসা ও কারিগরি বিভাগ থেকে এমন নির্দেশ পেয়ে তা কার্যকরের উদ্যোগ নিতে গিয়ে হোঁচট খায় মাদরাসা অধিদপ্তর।

জানা যায়, এমপিও প্রক্রিয়াকরণ ও বেতন-ভাতার সরকারি অংশ ছাড়করণের জন্য  এখনও শিক্ষা অধিদপ্তরের ইএমআইএস সেলের ওপর নির্ভর করতে হয় মাদরাসা অধিদপ্তরকে। শিক্ষা অধিদপ্তরের ইএমআইএস সেলের সফটওয়্যারে ৬ শতাংশের ফরম্যাট করা রয়েছে। হঠাৎ ১০ শতাংশ কর্তন করতে পারছেন না। এ জন্য সময় লাগবে। এতে মাদরাসা শিক্ষকদের ফেব্রুয়ারি মাসের এমপিওর চেক ছাড়ে দেরি হতে পারে বলে দৈনিক শিক্ষাকে জানিয়েছেন একাধিক কর্মকর্তা। ইএমআইএস সেলের কর্মকর্তারা মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ড. সৈয়দ গোলাম ফারুককে সোমবার বিকেলে মৌখিকভাবে সফটওয়্যারের এ সমস্যার কথা জানিয়েছেন। এরপর ইএমআইএস সেল কর্মকর্তাদেরকে তা লিখিতভাবে জানাতে বলা হলেও সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত তারা মহাপরিচালককে জানাতে পারেননি। 

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক মাদরাসা অধিদপ্তরের একজন কর্মকর্তা দৈনিক শিক্ষাকে বলেন, ইএমআইএস সেলের অদক্ষতা ও অক্ষমতার তথ্য মাদরাসা ও কারিগরি বিভাগের সচিব মো. আলমগীরকে জানানো হয়েছে। 

কারিগরির শিক্ষক-কর্মচারীদের ১০ শতাংশ চাঁদা কর্তন শুরু হয়েছে জানুয়ারি মাসের এমপিও থেকে। অপরদিকে স্কুল-কলেজের ফেব্রুয়ারি মাসের বেতন-ভাতার সরকারি অংশের চেক সোমবার ব্যাংকে পাঠানো হলেও পূর্বের নিয়মে ৬ শতাংশ হারেই চাঁদা কর্তন করা হয়েছে। 




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
১৫তম শিক্ষক নিবন্ধনের লিখিত পরীক্ষার ফল প্রস্তুত - dainik shiksha ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধনের লিখিত পরীক্ষার ফল প্রস্তুত এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন - dainik shiksha এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন গুগল ম্যাপে টয়লেটের লোকেশনে আবরার হত্যায় অভিযুক্তদের নাম - dainik shiksha গুগল ম্যাপে টয়লেটের লোকেশনে আবরার হত্যায় অভিযুক্তদের নাম মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ - dainik shiksha মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? - dainik shiksha কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত - dainik shiksha ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website