ডিগ্রি পরীক্ষায় ৪ বিষয়ে ফেল মিন্নি - কলেজ - দৈনিকশিক্ষা


ডিগ্রি পরীক্ষায় ৪ বিষয়ে ফেল মিন্নি

বরগুনা প্রতিনিধি |

বরগুনার বহুল আলোচিত রিফাত শরীফ হত্যা মামলার আসামি ও তার স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নি ডিগ্রি পরীক্ষায় সাত বিষয়ের মধ্য চারটিতে ফেল হয়েছেন। উত্তীর্ণ হওয়া তিন বিষয়ের মধ্যে একটিতে ডি গ্রেড এবং বাকি দুটিতে সি গ্রেড পেয়েছেন। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সদ্যপ্রকাশিত ডিগ্রি প্রথম বর্ষের ফলাফলে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

বুধবার (১২ আগস্ট) সন্ধ্যা ৭ টায় জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে এ ফল প্রকাশিত হয়।

জানা গেছে, মিন্নি স্বাধীন বাংলাদেশের অভ্যুদয়ের ইতিহাস বিষয়ে ডি গ্রেড ও রাষ্ট্রবিজ্ঞান প্রথম পত্রে পেয়েছেন সি পেয়েছেন। রাষ্ট্রবিজ্ঞান দ্বিতীয় পত্রে পাস করেননি। ইসলামের ইতিহাস প্রথম পত্রে পেয়েছেন সি গ্রেড। ইসলামের ইতিহাস দ্বিতীয় পত্রে পাস করেননি। এছাড়া অর্থনীতি প্রথম এবং দ্বিতীয় পত্রেও অকৃতকার্য হয়েছেন।

মিন্নি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে ডিগ্রি ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের বরগুনা সরকারি কলেজের শিক্ষার্থী। ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দে অনুষ্ঠিত ডিগ্রি প্রথম বর্ষের পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন তিনি।

২০১৯ খ্রিষ্টাব্দের শেষ দিকে এ পরীক্ষা শুরু হওয়ার পর শেষ হয় ২০২০ খ্রিষ্টাব্দের ফেব্রুয়ারি মাসে। বরগুনা সরকারি কলেজ থেকে ব্যাচেলর অব স্যোসাল সায়েন্স (বিএসএস) গ্রুপ থেকে এ পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন তিনি।

দেশব্যাপী করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ায় আদালত বন্ধ হওয়ার আগে মিন্নির ডিগ্রি প্রথম বর্ষের পরীক্ষা শেষ হয়। একদিকে রিফাত হত্যা মামলার বিচারকাজ অন্যদিকে পরীক্ষা চলায় মামলার কার্যদিবসেও আদালতের অনুমতি নিয়ে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন মিন্নি।

এ বিষয়ে মিন্নির বাবা মো. মোজাম্মেল হোসেনে কিশোর বলেন, মিন্নি কাঙ্ক্ষিত ফল করতে পারেনি। আসলে ওর যে অবস্থা তাতে ভালো ফল অর্জন করা সম্ভবও নয়।

তিনি বলেন, পরীক্ষার আগে ভালোভাবে মিন্নি প্রস্তুতি নিতে পারেনি। যে সময়ে ওর পরীক্ষার প্রস্তুতি গ্রহণ করার কথা, সে সময়ে ৪৯ দিন কারাগারে ছিল।

উল্লেখ্য, গত বছরের ২৬ জুন বরগুনা সরকারি কলেজের সামনে রিফাত শরীফকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা করা হয়। এ ঘটনার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হলে দেশব্যাপী আলোড়ন সৃষ্টি হয়। এ মামলায় পরবর্তী সময় আসামি করা হয় রিফাতের স্ত্রী মিন্নিকে। পরে তিনি হাইকোর্ট থেকে জামিন পান।




পাঠকের মন্তব্য দেখুন
প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের আবেদনে ভুল সংশোধনের সুযোগ - dainik shiksha প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের আবেদনে ভুল সংশোধনের সুযোগ আসছে বছর থেকেই পাঠ্যপুস্তকে অন্তর্ভুক্ত হচ্ছে প্রোগ্রামিং - dainik shiksha আসছে বছর থেকেই পাঠ্যপুস্তকে অন্তর্ভুক্ত হচ্ছে প্রোগ্রামিং ৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত সংসদ টিভিতে মাধ্যমিকের ক্লাস রুটিন - dainik shiksha ৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত সংসদ টিভিতে মাধ্যমিকের ক্লাস রুটিন ইবতেদায়ি ও দাখিল শিক্ষার্থীদের পঞ্চম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ - dainik shiksha ইবতেদায়ি ও দাখিল শিক্ষার্থীদের পঞ্চম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বেতনও ইএফটিতে - dainik shiksha প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বেতনও ইএফটিতে ইবতেদায়ি সমাপনী পরীক্ষার দায়িত্ব মাদরাসা বোর্ডের - dainik shiksha ইবতেদায়ি সমাপনী পরীক্ষার দায়িত্ব মাদরাসা বোর্ডের প্রতি স্কুলের তিন শিক্ষককে করতে হবে কৈশোরকালীন পুষ্টি প্রশিক্ষণ - dainik shiksha প্রতি স্কুলের তিন শিক্ষককে করতে হবে কৈশোরকালীন পুষ্টি প্রশিক্ষণ please click here to view dainikshiksha website