মন্তব্য লিখতে লগইন অথবা রেজিস্টার করুন

মন্তব্যের তালিকা

Md.Rafiqul Islam, ১৮ জুন, ২০২০
কলেজের অফিস বনধ ।GBএর RESOLUTION কীভাবে পাবো ? অটো প্রমোশন দেয়া উচিত ।অনুপাত প্রথা বাতিল করতে হবে ।১৫ বছর হলে সবাইকে AP করতে হবে । মো: রফিকুল ইসলাম
md mostafa kamal, ১৬ জুন, ২০২০
১৯৯৫ সাল থেকে এসব খবর অনেক বার শুনেছি,বস্তায় বস্তায় পরিপত্র আদেশ নিষেধ ২০১২ সালের পুর্বে নিয়োগ ম্পিউটার শিক্ষকদের বেতন আর হয়না অথচ একই অবস্থায় হাজারের অধিক কম্পিউটার শিক্ষক চুরি, চামারি অফিসার ধরে ঘুষ দিয়ে বেতন খাচ্ছে সেখানে কোন অফিসার নাক গলাতে পারেনা আইন সেখানে ব্যার্থ কিছু করার ও সামথ্য সরকারের ও নাই অথচ ২০০ জনের মত কম্পিউটার শিক্ষকের বেতন দিতে সরকারের কোষাগার খালি হয়ে যায়।কোন দেশে বাস করি কোন ডিজিটাল দেশ সিঙ্গাপুর ছাড়িয়ে যাচ্ছে ঐ খানে কি করা যায় হায়রে বাংলাদেশ বিনা বেতনে ১ জন কম্পিউটার শিক্ষকের রিটায়েট অত্যান্ত মর্মান্তিক।
মোঃ নুরুল ইসলাম, ১৫ জুন, ২০২০
নব সৃষ্ট পদে সহকারী শিক্ষক (ব্যবসায় শিক্ষা) NTRCA এর মাধ্যমে ২য় চক্রে যোগদান করি। তখন প্রতিষ্ঠান নন এমপিও ছিল। একবার শুনলাম মাউশি কতৃক নন এমপিও শিক্ষকদের (যারা এমপিও হতে পারেন নাই) তালিকা তৈরি করা হয়েছে। কিন্তু আমার নাম মাউশিতে নাই। এখন আমার স্কুল এমপিও হওয়ার পর MPO ফাইল পাঠালে তাহা আঞ্চলিক অফিস থেকে বাতিল করে ০৪/০৮/২০১৯ তারিখের পরিপত্রের কারণে। এক্ষেত্রে আমি কিভাবে MPO হতে পারি।
ASMA AKTER, ১৪ জুন, ২০২০
বরগুনা জেলার বেতাগী উপজেলার পুটিয়াখালী আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক প্রদীপ কুমার বিশ্বাস ২০১৬ সালের জুন মাসে চাকুরী থেকে অব্যাহতি নিয়ে (স্কুল থেকে ছাড়পত্র ) অন্য স্কুল যোগদান করার পর বেতন করতে না পেরে তৎকালীন জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে অনৈতিক লেনদেনের মাধ্যমে এখন পর্যন্ত বেতন ভাতা উত্তোলন করতেছে। যেটা বেতাগী উপজেলায় তখন থেকে টক্ অফ দি বেতাগীতে পরিণত। বিষয়টি তদন্ত পূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য বরগুনা জেলা প্রশাসক, জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার নিকট বিনীতভাবে আবেদন করছি।
ASMA AKTER, ১৪ জুন, ২০২০
বরগুনা জেলার বেতাগী উপজেলার পুটিয়াখালী আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক প্রদীপ কুমার বিশ্বাস ২০১৬ সালের জুন মাসে চাকুরী থেকে অব্যাহতি নিয়ে (স্কুল থেকে ছাড়পত্র ) অন্য স্কুল যোগদান করার পর বেতন করতে না পেরে তৎকালীন জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে অনৈতিক লেনদেনের মাধ্যমে এখন পর্যন্ত বেতন ভাতা উত্তোলন করতেছে। যেটা বেতাগী উপজেলায় তখন থেকে টক্ অফ দি বেতাগীতে পরিণত। বিষয়টি তদন্ত পূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য বরগুনা জেলা প্রশাসক, জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার নিকট বিনীতভাবে আবেদন করছি।
ASMA AKTER, ১৪ জুন, ২০২০
বরগুনা জেলার বেতাগী উপজেলার পুটিয়াখালী আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক প্রদীপ কুমার বিশ্বাস ২০১৬ সালের জুন মাসে চাকুরী থেকে অব্যাহতি নিয়ে (স্কুল থেকে ছাড়পত্র ) অন্য স্কুল যোগদান করার পর বেতন করতে না পেরে তৎকালীন জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে অনৈতিক লেনদেনের মাধ্যমে এখন পর্যন্ত বেতন ভাতা উত্তোলন করতেছে। যেটা বেতাগী উপজেলায় তখন থেকে টক্ অফ দি বেতাগীতে পরিণত। বিষয়টি তদন্ত পূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য বরগুনা জেলা প্রশাসক, জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার নিকট বিনীতভাবে আবেদন করছি।