মন্তব্য লিখতে লগইন অথবা রেজিস্টার করুন

মন্তব্যের তালিকা

Mst. Rashida Khanom, ২৬ এপ্রিল, ২০২২
Mr. Shamsuddin Elias- Thanks a lot for your mindful observation and positive comments.
Mst. Rashida Khanom, ২৪ এপ্রিল, ২০২২
শিক্ষা ব্যবস্থা সরকারের নিয়ন্ত্রনে না থাকলে এমনই হয়। সরকারী করা না হলে ব্যাঙ্গের ছাতার মত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গজাবে, (প্রয়োজনের অতিরিক্ত) আর সরকার ভাতা দিতে থাকবে। ধরুন খুলনার খালিশপুর মেট্টো থানায় মাধ্যমিক শিক্ষা পরিচালিত হয় ২৮ টি প্রতিষ্ঠানে ছাত্র সংখ্যা অনুযায়ী ডাবল শিফটের ১০ টি স্কুলই এখানে যথেষ্ট। এখন ২৮ জন প্রধান সরকারি হলে ১০জনে চলবে। এখন ৩৩ জন সহ প্রধান সরকারি হলে ২০ জনে চলবে। এভাবে শিক্ষকও কম লাগবে। আমার হিসেবে শিক্ষক লাগবে ৫০%। কার গোয়াল কে দেয় ধূয়া। কে শুনবে কার কথা?
Mst. Rashida Khanom, ২৪ এপ্রিল, ২০২২
শিক্ষা ব্যবস্থা সরকারের নিয়ন্ত্রনে না থাকলে এমনই হয়। সরকারী করা না হলে ব্যাঙ্গের ছাতার মত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গজাবে, (প্রয়োজনের অতিরিক্ত) আর সরকার ভাতা দিতে থাকবে। ধরুন খুলনার খালিশপুর মেট্টো থানায় মাধ্যমিক শিক্ষা পরিচালিত হয় ২৮ টি প্রতিষ্ঠান ছাত্র সংখ্যা অনুযায়ী ডাবল শিফটের ১০ টি স্কুলই এখানে যথেষ্ট। এখন ২৮ জন প্রধান সরকারি হলে ১০জনে চলবে। এখন ৩৩ জন সহ প্রধান সরকারি হলে ২০ জনে চলবে। এভাবে শিক্ষকও কম লাগবে। আমার হিসেবে শিক্ষক লাগবে ৫০%। কার গোয়াল কে দেয় ধূয়া। কে শুনবে কার কথা?
Shamsuddin Elias, ০৯ এপ্রিল, ২০২১
Thank u so much for your info based write-up. The Govt should have, I would rather say must have, accurate and authentic info about the nature & number of Madrasas as well as the number of teachers & students in those institutions. As the Govt is giving incentives to the Madrasas in many ways, it is very unfortunate and serious negligence on the part of the officials concerned who were assigned to conduct the survey. The authority should look into the matter immediately.