আমাদের সঙ্গে থাকতে দৈনিকশিক্ষাডটকম ফেসবুক পেজে লাইক দিন।


হুইল চেয়ারে বসেই প্রতিবন্ধী সম্রাটের জেএসসি জয়

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি | জানুয়ারি ৩, ২০১৮ | জেএসসি/জেডিসি

হুইল চেয়ারে বসেই প্রতিবন্ধী সম্রাট জয় করেছে জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট। প্রতিবন্ধী জীবনে অদম্য উৎসাহ ও মনোবলে ভর করে আলোকিত জীবন গড়ার স্বপ্ন নিয়ে দুর্গম পথ পাড়ি দিয়ে সম্রাট ২০১৭ সালের জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) পরীক্ষায় অংশ নিয়ে জিপিএ-২.৯৩ পেয়ে কৃতকার্য হয়েছে।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা বাবুল হাসান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। পড়াশোনায় অদম্য ইচ্ছা শক্তির বদৌলতে প্রতিবন্ধকতাকে পিছনে ঠেলে হুইল চেয়ারে বসেই শারীরিক প্রতিবন্ধী এই শিক্ষার্থী বাসাইল গোবিন্দ সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে জেএসসি পরীক্ষায় অংশ নেন।

সম্রাট বাসাইল উপজেলার হাবলা টেঙ্গুরিয়াপাড়া আব্দুল্লাহেল বাকী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও একই এলাকার চা বিক্রেতা হাবিবুর রহমান ও গৃহিণী শুকুরী বেগমের সন্তান। জানা যায়, তারদু’টি পা-ই বিকল। তারপরেও সে হুইল চেয়ারে বসেই পরীক্ষায় অংশ নেয়। পা-বিকল, তো কি হয়েছে? প্রতিবন্ধকতাকে উপেক্ষা করে কখনও হামাগুড়ি কখনও হুইল চেয়ারে ভর করে মনের ইচ্ছা শক্তিকে কাজে লাগিয়েই জীবন সংগ্রামের গন্তব্যে পৌছানোর জন্যই এ পরীক্ষায় অংশ নেয় সম্রাট। দরিদ্রতার কষাঘাতে জর্জরিত সম্রাট জন্ম থেকেই শারিরীক প্রতিবন্ধী।

শিক্ষার আলোয় নিজেকে আলোকিত করার আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। ৮/১০ জনের মতই উচ্চ শিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে চাকরি করার স্বপ্নও তার। সম্রাট বিগত ২০১৪ সালের প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে জিপিএ-এ গ্রেড পেয়ে উত্তীর্ণ হয়ে এবার জেএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে।

হাবিবুর রহমানের চার সন্তান। দুই ছেলে দুই মেয়ে। বড় মেয়েও প্রতিবন্ধী। তার এই প্রতিবন্ধী ছেলে সম্রাটকে কখনও পড়ালেখা করানোর কথা চিন্তাও করেনি।

"১" মন্তব্য
আপনার মন্তব্য দিন