সরকারি স্কুল-কলেজ কর্মচারীদের অনলাইনে পিডিএস পূরণের নির্দেশ - কলেজ - দৈনিকশিক্ষা


সরকারি স্কুল-কলেজ কর্মচারীদের অনলাইনে পিডিএস পূরণের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক |

বিভিন্ন শিক্ষা অফিস এবং সরকারি স্কুল-কলেজের কর্মচারীদের পার্সোনাল ডাটা শিট (পিডিএস) না থাকায় তাদের পদোন্নতি শূন্য পদের তালিকা ইত্যাদি নিয়ে বিভিন্ন সমস্যায় পড়তে হচ্ছিল মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরকে। এ সমস্যা নিরসনে কর্মচারীদের তথ্য সংগ্রহে একটি সফটওয়্যার তৈরি করা হয়েছে। এ সফটওয়্যারে বিভিন্ন শিক্ষা অফিস এবং সরকারি স্কুল-কলেজের ১০ম থেকে ২০তম গ্রেডের কর্মচারীদের অনলাইন পিডিএস পূরণের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। আগামী ৭ জুলাই থেকে ১৬ জুলাইয়ের মধ্যে কর্মচারীদের অনলাইনে পিডিএস পূরণ করতে হবে।

আর ১৫ জুলাইয়ের পর বিভিন্ন শিক্ষা অফিস এবং সরকারি স্কুল-কলেজের কর্মচারীদের, বদলি, পদায়ন, উচ্চতর গ্রেড, পেনশন ইতাদি আবেদনের সাথে পিডিএস বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে এ-সংক্রান্ত আদেশ জারি করা হয়।

আদেশে বলা হয়, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের অধীনে কর্মরত রাজস্ব খাতভুক্ত কর্মচারীদের পিডিএস না থাকায় বিভিন্ন কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা বিঘ্নিত হয়। কর্মচারীদের সৃষ্ট ও শূন্য পদের সঠিক সংখ্যা নিরূপণ, নিয়োগ, বদলি, জ্যেষ্ঠতার তালিকা প্রণয়ন, পদোন্নতি, উচ্চতর গ্রেড প্রদান, প্রশিক্ষণসহ যাবতীয় কার্যক্রম পরিচালনার ক্ষেত্রে দীর্ঘসূত্রিতা দেখা দেয়। তাই, কর্মচারীদের জন্য একটি স্বয়ংসম্পূর্ণ তথ্য ভাণ্ডার তৈরির উদ্যোগ নেয় হয়। যার অংশ হিসাবে ইতোমধ্যে একটি আধুনিক ও যুগোপযোগী অনলাইনভিত্তিক সফটওয়্যারও প্রস্তুত করা হয়েছে।

এ সফটওয়্যারে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর ও এর আওতাধীন দপ্তর ও সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহে কর্মরত ১০ম থেকে ২০তম গ্রেডের (পূর্বতন তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণির) রাজস্ব খাতভুক্ত কর্মচারীদের আগামী ৭ জুলাই থেকে ১৬ জুলাইয়ের মধ্যে অনলাইনে স্বয়ংসম্পূর্ণ পিডিএস পূরণের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে আদেশে।

আদেশে আরও বলা হয়, আগামী ১৫ জুলাই থেকে কর্মচারীদের সব ধরনের দাপ্তরিক আদেশে, পত্রে, আইডি কার্ডে এবং আবেদনে তাদের নামের পাশে বাধ্যতামূলকভাবে পিডিএস নম্বর লিখতে হবে। পিডিএস ছাড়া অধিদপ্তর থেকে কোন কর্মচারীর কোনো বদলি, নিয়মিতকরণ, স্থায়ীকরণ, পদোন্নতি, উচ্চতর গ্রেড প্রদান, পিআরএল বা পেনশনসহ সকল ধরনের ছুটি মঞ্জুর এবং উচ্চশিক্ষা গ্রহণ সংক্রান্ত আবেদন বিবেচনা করা সম্ভব হবে না।


পাঠকের মন্তব্য দেখুন
৮ উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে বদলি - dainik shiksha ৮ উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে বদলি ‘শিক্ষা ক্যাডার নয়, শিক্ষা সার্ভিস চালু করা উচিত’ - dainik shiksha ‘শিক্ষা ক্যাডার নয়, শিক্ষা সার্ভিস চালু করা উচিত’ ৩৮তম বিসিএসের গেজেট প্রকাশ - dainik shiksha ৩৮তম বিসিএসের গেজেট প্রকাশ ৪ ফেব্রুয়ারি এসএসসি ও এইচএসসির নতুন সিলেবাস প্রকাশ - dainik shiksha ৪ ফেব্রুয়ারি এসএসসি ও এইচএসসির নতুন সিলেবাস প্রকাশ খোলার ৬০ দিন পর এসএসসি, ৮৪ দিন পর এইচএসসি পরীক্ষা - dainik shiksha খোলার ৬০ দিন পর এসএসসি, ৮৪ দিন পর এইচএসসি পরীক্ষা বিসিএস পরীক্ষার খাতা মূল্যায়নে আরেকটু আন্তরিক হোন, পরীক্ষকদের প্রতি চেয়ারম্যান - dainik shiksha বিসিএস পরীক্ষার খাতা মূল্যায়নে আরেকটু আন্তরিক হোন, পরীক্ষকদের প্রতি চেয়ারম্যান please click here to view dainikshiksha website